কুড়িগ্রামের জনজীবন অতিষ্ট তাপদাহে

কুড়িগ্রামে প্রায় দুই সপ্তাহ ধরে বৃষ্টির দেখা নেই। গত কয়েকদিন ধরে গড় সব্বোর্চ তাপমাত্রা থাকছে ৩৫ থেকে ৩৭ ডিগ্রি সে.। বইছে গরম বাতাস। প্রচণ্ড গরমে কাহিল হয়ে পড়েছে জেলার মানুষ।

তাপদাহের কারণে মানুষ ঘর থেকে বের হতে চাইছেন না।

কুড়িগ্রাম শহরে দুপুর ১২টার পর একদম ফাঁকা হয়ে যায় প্রায় সব। এ সময় মানুষ আর যানবাহন চলাচলও অনেক কম।

সন্ধ্যার পর কিছুটা মানুষের উপস্থিতি দেখা গেলেও তারাও গরমে কাহিল হয়ে পড়ছেন।

গরমের কারণে শ্রমজীবীরা চরম কষ্টে পড়েছেন। তারা কাজ করতে পারছেন না। তাপদাহের কারণে শহর ও গ্রামে নানা রোগে আক্রান্ত হচ্ছেন।

গত ২৪ ঘণ্টায় কুড়িগ্রাম সদর হাসপাতালে ৩শ’ ৭০ জন চিকিৎসা নিতে এসেছেন। এর মধ্যে জ্বর, ডায়রিয়া রোগীর সংখ্যা সবচেয়ে বেশি। পানির অভাবে কৃষকরা রোপা আবাদ করতে পারছে না। অনেক খেত নষ্ট হবার উপক্রম হয়েছে এরইমধ্যে।

কুড়িগ্রাম আবহাওয়া পর্যবেক্ষণ কেন্দ্রের পরিচালক মো. সবুজ জানিয়েছেন, আরো তিন থেকে চারদিন এ অবস্থা বিরাজমান থাকতে পারে। এরপর সব স্বাভাবিক হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে।