পদ্মা সেতু হয়ে টুঙ্গিপাড়ায় প্রধানমন্ত্রী

ছেলে সজীব ওয়াজেদ জয় এবং মেয়ে সায়মা ওয়াজেদকে সঙ্গে নিয়ে ফাতেহা পাঠ এবং জাতির পিতা ও ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট নৃশংস হত্যাযজ্ঞের অন্যান্য শহীদদের বিদেহী আত্মার শান্তি কামনা করে মোনাজাতে যোগ দেন প্রধানমন্ত্রী।

এ সময় শেখ হাসিনা ও তাঁদের পরিবারের সদস্যদের সুস্বাস্থ্য ও দীর্ঘায়ু এবং দেশের শান্তি, অগ্রগতি ও সমৃদ্ধি কামনা করেও দোয়া করা হয়।

প্রধানমন্ত্রীর সহকারী প্রেস সচিব এম এম ইমরুল কায়েস এসব তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

এর আগে প্রধানমন্ত্রী জাতির পিতার সমাধিতে পুষ্পস্তবক অর্পণ করে তাঁর প্রতি গভীর শ্রদ্ধা নিবেদন করেন।

পুষ্পস্তবক অর্পণের পর স্বাধীনতার মহান স্থপতির স্মৃতির প্রতি শ্রদ্ধার নিদর্শন হিসেবে সেখানে কিছুক্ষণ নীরবে দাঁড়িয়ে থাকেন প্রধানমন্ত্রী। প্রধানমন্ত্রীর পরিবারের সদস্যেরা এ সময় উপস্থিত ছিলেন।

গণভবন থেকে আজ সোমবার সকাল ৮টার দিকে টুঙ্গিপাড়ার উদ্দেশে রওনা দেন প্রধানমন্ত্রী। এরপর মাওয়া টোল প্লাজায় টোল দিয়ে সেতুতে ওঠেন তাঁরা। সেতুতে সন্তানদের সঙ্গে কিছুক্ষণ সময় কাটান প্রধানমন্ত্রী। এ সময় ছবিও তোলেন তাঁরা। টুঙ্গিপাড়া যাওয়ার পথে শেখ হাসিনা পরিবারের সদস্যদের নিয়ে জাজিরা পয়েন্টের সার্ভিস এলাকায় কিছুক্ষণ বিশ্রাম নেন। বিকেলে হেলিকপ্টারে করে ঢাকার উদ্দেশে টুঙ্গিপাড়া ত্যাগ করার কথা রয়েছে প্রধানমন্ত্রীর।