ডব্লিউএইচওর ফিল্ম ফেস্টিভ্যালে বিজয়ীদের তালিকা প্রকাশ

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার (ডব্লিউএইচও) হেলথ ফর অল ফিল্ম ফেস্টিভ্যালের (এইচএএফএফ) বিজয়ীদের তালিকা প্রকাশ করা হয়েছে। তৃতীয়বারের মতো এ ফেস্টিভ্যাল অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে। এতে বিশ্বব্যাপী স্বাস্থ্য সমস্যাগুলোর পটভূমিতে গল্প তুলে ধরায় সাতটি শর্ট ফিল্ম এবং ছয়টি ফিল্মের তালিকা তুলে ধরা হয়েছে।

শনিবার (১৩ মে) বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার ওয়েবসাইটের এক বিবৃতির মাধ্যমে এ তালিকা প্রকাশ করা হয়েছে। তালিকায় ‘প্রি-এক্লাম্পসিয়া: প্রেডিক্ট আর্লিয়ার, প্রিভেন্ট আর্লিয়ার’ নামক ইন্দোনেশিয়ান শর্ট ফিল্মকে বিজয়ী ঘোষণা করা হয়েছে।

বিজয়ী অন্য শর্ট ফিল্মগুলো হলো যুক্তরাজ্যের ইনটেনসিভ, ভারতের ইউফোরিক, ইটালির সিম-ফাটিয়া, ভারতের ফর এভরি গার্ল এ ফরেস্ট, সিয়ারা লিওনের ইম্প্রুভিং লাইভস অ্যান থ্রি-ডায়মেনসনস: থ্রিডি প্রিন্টেড প্রোস্থেসিস এবং কেনিয়ার গ্ল্যামিং মাই উন্ডস। এ ছাড়াও জুরিদের মতামতের ভিত্তিতে আরও ছয়টি শর্ট ফিল্মকে বিশেষভাবে উল্লেখ করা হয়েছে।

সংস্থাটি জানায়, বিশ্বের ১১০টির বেশি দেশের এক হাজারের বেশি চলচ্চিত্র নির্মাতা বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার ‘হেলথ ফর অল ফিল্ম ফেস্টিভ্যাল’-এর তৃতীয় সংস্করণের জন্য শর্ট ফিল্ম জমা দিয়েছিল। যেখানে যুদ্ধের মানসিক চাপ থেকে শুরু করে মহামারি করোনার সঙ্গে জীবনযাপন, নারী ও শিশু স্বাস্থ্যসহ নানা দিক উঠে এসেছে।

সাধারণ দর্শকরা নির্বাচিত ৭০টি শর্ট ফিল্ম ৬টি ক্যাটাগরিতে অনলাইনে দেখতে পারবেন। ‘গ্র্যান্ড প্রিক্স’ এট্রিবিউটের মাধ্যমে দর্শকরা প্রধান তিনটি ক্যাটাগরির ফিল্মগুলো দেখতে পারবেন বলে জানিয়েছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা।